Skip to main content

সংসদীয় কমিটিও হচ্ছে তারুণ্য নির্ভর!

Article Highlights

২০০৮ সালের ২৯ ডিসেম্বরের নবম জাতীয় সংসদ থেকে এ পর্যন্ত টানা তিন দফায় নির্বাচিত তরুণ সংসদ সদস্যদের সংসদীয় কমিটির সভাপতি পদে মনোনয়নের বিষয়ে ভাবা হচ্ছে। বেশ কয়েকজন তরুণকেও কমিটির সভাপতি পদ দেয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। তাদের বিষয়ে খোঁজ খবর নেয়া হচ্ছে।
 

তারুণ্য নির্ভর মন্ত্রিসভার পর সরকারের কর্মকাণ্ড দেখভাল করার ‘ওয়াচডগ’ প্রতিষ্ঠান প্রতিটি মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় কমিটিতেও তরুণদের সুযোগ দেয়া হচ্ছে। প্রায় অর্ধশত সংসদীয় কমিটির এক তৃতীয়াংশ কমিটিতেই থাকছে অনুর্ধ ৫০-এর সংসদ সদস্যরা।

সংসদ সংশ্লিষ্ট একাধিক সূত্র বিষয়টি নিশ্চিত করে জানিয়েছে, ইতিমধ্যে তিন থেকে চারবার সংসদ সদস্য হয়েছেন এমন এমপিদের একটি তালিকা তৈরি করা হচ্ছে। তাদেরকেই সংসদীয় কমিটির সভাপতির পদ দেয়া হবে। ২০০৯ সাল থেকে সংসদীয় কমিটির সভাপতির পদটি গুরুত্বপূর্ণ হিসেবে বিবেচিত হচ্ছে। সংসদীয় কমিটির সভাপতিদের ওয়ারেন্ট অব প্রিসিডেন্সে নির্দিস্ট কোনো স্থান না থাকলেও কমিটির সভাপতিরা সংসদীয় কমিটিতে মন্ত্রীদের কাজের হিসাব নিতে পারেন।

২০০৯ সাল থেকে সংসদীয় কমিটির সভাপতিদের গাড়িতে সংসদের পতাকা ব্যবহার এবং গানম্যান দেয়ার বিধান করা হয়। ফলে ঢাকাসহ সর্বত্রই তারা পতাকা ব্যবহার করতে পারেন। মন্ত্রিসভার সদস্যদের মধ্যে যারা পূর্ণমন্ত্রী শুধুমাত্র তারাই ঢাকা মহানগরে গাড়িতে পতাকা ব্যবহারের অনুমতি পান। 

সংসদীয় কমিটিতে চেয়ারম্যান যেখানে প্রধান সেখানে মন্ত্রীর অবস্থান সদস্য হওয়ায় সংসদীয় কমিটিকে সবাই সমীহ করে চলেন।

সংসদ সূত্র জানিয়েছে, সংসদের প্রথম অধিবেশনেই বিভিন্ন মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় কমিটিগুলো গঠিত হতে পারে। সংসদ নেতার অনুমতিক্রমে এবং জাতীয় সংসদের চিফ হুইপের প্রস্তাবক্রমে সংসদে কণ্ঠভোটে সংসদীয় কমিটি গঠিত হয়ে থাকে। ফলে এবারও সংসদীয় কমিটির সভাপতি পদে সংসদ নেতা ও প্রধানমন্ত্রীই মনোনয়ন দেবেন। মন্ত্রী হওয়ার যোগ্য অথচ মন্ত্রিসভায় স্থান দেয়া সম্ভব হয়নি এমন ব্যক্তিদের সংসদীয় কমিটির সভাপতি করা হয়ে থাকে। নবগঠিত মন্ত্রিসভায় এক ডজনেরও বেশি সংসদীয় কমিটির সভাপতি স্থান পেয়েছেন।

২০০৮ সালের ২৯ ডিসেম্বরের নবম জাতীয় সংসদ থেকে এ পর্যন্ত টানা তিন দফায় নির্বাচিত তরুণ সংসদ সদস্যদের সংসদীয় কমিটির সভাপতি পদে মনোনয়নের বিষয়ে ভাবা হচ্ছে। বেশ কয়েকজন তরুণকেও কমিটির সভাপতি পদ দেয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। তাদের বিষয়ে খোঁজ খবর নেয়া হচ্ছে।

অন্যান্য সংবাদ